৩২ মিলিয়নের বেশি ব্যবহারকারী হারাবে টুইটার!

ইলেকট্রিক গাড়ি নির্মাতা প্রতিষ্ঠান টেলসা এবং রকেট নির্মাতা প্রতিষ্ঠান স্পেসএক্সের প্রধান নির্বাহী ইলন মাস্ক চলতি বছরের অক্টোবরে জনপ্রিয় সোশ্যাল নেটওয়ার্কিং প্লাটফর্ম টুইটারের মালিক হয়েছেন।

বিশ্বের দ্বিতীয় শীর্ষ এই ধনী ব্যক্তি টুইটারের মালিক হওয়ার পর প্রতিষ্ঠানটির প্রধান নির্বাহীর পদটিও নিজের হাতে রেখে দিয়েছেন। অর্থাৎ টুইটারে তিনিই এখন একমাত্র বড় কর্তা।

তবে তার মালিকানায় টুইটারের সামনের দিনগুলো কঠিন হতে পারে বলে মনে করছেন অনেকেই। ইনসাইডার ইন্টেলিজেন্সের তথ্য বলছে, আগামী দুই বছরে ৩২ মিলিয়নের বেশি ব্যবহারকারী হারাবে টুইটার।

২০২৩ সালে টুইটার মোট ব্যবহারকারীর প্রায় ৪ শতাংশ হারাবে এবং ২০২৪ সালে ৫ শতাংশ হারাবে, অর্থাৎ আগামী দুই বছরে ৩২ মিলিয়নের বেশি ব্যবহারকারী প্লাটফর্মটি ছেড়ে যাবে, ইনসাইডার ইন্টেলিজেন্সের বার্ষিক এক প্রতিবেদনে এমন পূর্বাভাস উঠে এসেছে। ২০০৮ সাল থেকে প্ল্যাটফর্মটি ট্র্যাক করছে ইনসাইডার ইন্টেলিজেন্স।

প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, টুইটারে প্রযুক্তিগত সমস্যা এবং ঘৃণামূলক বক্তব্য ও আপত্তিকর বিষয়বস্তুর বন্যার কারণে বিরক্ত হয়ে ব্যবহারকারীরা প্ল্যাটফর্মটি ত্যাগ করবে।

ইনসাইডার ইন্টেলিজেন্সের প্রধান বিশ্লেষক জেসমিন এনবার্গ বলেছেন, ‘টুইটার শেষ হয়ে যাবে এমন বিপর্যয়কর ঘটনা ঘটবে না। তবে ব্যবহারকারীদের মধ্যে প্ল্যাটফর্মটি ত্যাগ করার প্রবণতা বর্তমানের তুলনায় অনেক বেড়ে যাবে। ব্যবহারকারীরা টুইটার ছেড়ে যেতে শুরু করবে, কারণ তারা প্রযুক্তিগত সমস্যা এবং ঘৃণ্য বা অন্যান্য অস্বস্তিকর সামগ্রীর বিস্তারের কারণে হতাশ হয়ে পড়বে।’

সীমিত সংখ্যক টুইটার কর্মী, যাদেরকে দিয়ে বর্তমানে রাত-দিন খাটানো হচ্ছে, তারা প্ল্যাটফর্মটির অবকাঠামো এবং বিষয়বস্তু নিয়ন্ত্রণের সমস্যাগুলো ভালোভাবে মোকাবেলা করতে সক্ষম হবে না বলে মনে করেন জেসমিন এনবার্গ।

আগামী দুই বছর বিজ্ঞাপন আয়ের ক্ষেত্রেও টুইটারের বড় অগ্রগতি হবে না বলে মনে করছে ইনসাইডার ইন্টেলিজেন্স। ইলন মাস্ক টুইটারের মালিকানা নেওয়ার পর ইতিমধ্যে অডি, ভক্সওয়াগেন এবং ফাইজার সহ বেশ কয়েকটি কোম্পানি মাস্কের নতুন নীতিমালায় উদ্বেগ প্রকাশ করে প্ল্যাটফর্মটিতে বিজ্ঞাপন বন্ধ করে দিয়েছে।

টুইটারের সামনের দিনগুলোর অন্ধকারাচ্ছন্ন পূর্বাভাস সত্ত্বেও এনবার্গ বলেছেন, ইলন মাস্ক যদি পরিষেবার সমস্যা এবং প্ল্যাটফর্মের বিষয়বস্তু নিয়ন্ত্রণের সমস্যাগুলো সমাধান করেন এবং অ্যাপে নতুন নতুন ফিচার নিয়ে আসেন, তাহলে তিনি ব্যবহারকারীর গতিপথ উল্টাতে সক্ষম হতে পারেন।

চলতি বছরের অক্টোবর মাসে টুইটারের নতুন মালিক ইলন মাস্ক কোম্পানির প্রায় ৮ হাজার কর্মীর অর্ধেক ছাঁটাই করেছিলেন। এরপর গতমাসে তিনি টুইটার ২.০ নামে আরেকটি কঠোর পদক্ষেপ নেন, তার ওই পদক্ষেপের কারণে টুইটার ছেড়ে চলে গেছেন আরো ২ হাজার কর্মী। অর্থাৎ গত দুই মাসে ৮ হাজার কর্মী থেকে প্রায় ৬ হাজার কর্মী বিদায় নিয়েছেন টুইটার থেকে। ফলে বর্তমানে এতো কমসংখ্যক লোকবল নিয়ে প্ল্যাটফর্মটি সামনের দিনগুলোতে সমস্যার মুখে পড়বে বলে ধারণা বিশ্লেষকদের।

শেয়ার করুন:

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *