স্থানীয় পর্যায়ে এসডিজি বাস্তবায়নে প্রতিটি মানুষকে অন্তর্ভূক্ত করতে হবে – প্রধানমন্ত্রীর মূখ্য সচিব

তথ্য বিবরণী

প্রধানমন্ত্রীর মূখ্য সচিব মো: নজিবুর রহমান বলেছেন, সহ¯্রাব্দ উন্নয়ন লক্ষ্যমাত্রা (এসডিজি) বাস্তবায়নের সকল পর্যায়ে স্থানীয় লোকজনকে সমৃক্ত করতে হবে। তিনি গতকাল শনিবার খুলনা জেলা প্রশাসকের সম্মেলন কক্ষে স্থানীয় পর্যায়ে এসডিজি বাস্তবায়ন বিষয়ক দিনব্যাপী কর্মশালায় প্রধান অতিথির বক্তৃতায় একথা বলেন।

মূখ্য সচিব বলেন, বাংলাদেশ কেবল এসডিজি বাস্তবায়ন করছে না, এটি প্রণয়নেও অগ্রণী ভূমিকা রেখেছে। এসডিজি’র মূল প্রতিপাদ্য হচ্ছে কাউকে পিছনে ফেলে নয়। এজন্য প্রধানমন্ত্রী সকল অঞ্চলে সমান উন্নয়ন পরিকল্পনা গ্রহণ করেছে। গ্রামগুলোতেও শহরের সকল সুযোগ সুবিধা পৌছে দিতে ‘আমার গ্রাম আমার শহর’ ¯েøাগানে ডিজিটাল গ্রাম গড়ার উদ্যোগ গৃহীত হয়েছে। প্রধানমন্ত্রীর উদ্ভাবিত এধরণের বিভিন্ন  উন্নয়ন মডেল সারা বিশ্বে প্রসংশিত হচ্ছে।

খুলনার সাথে বঙ্গবন্ধুর আত্মিক সম্পর্ক ছিলো উল্লেখ করে প্রধান অতিথি বলেন, খুলনা বিভাগের লোকজনের চিন্তা চেতনা আলোকিত পর্যায়ের। উদ্ভাবনীতে অন্যান্য বিভাগের তুলনায় খুলনা এগিয়ে। যেহেতু এক এক এলাকার সম্পদ, সম্ভাবনা,সমস্যা ভিন্ন তাই সেই এলাকার প্রেক্ষাপটকে বিবেচনায় রেখেই এসডিজি বাস্তবায়ন পরিকল্পনা করতে হবে।

বিকেলে মূখ্য সচিব মোঃ নজিবুর মহমান খুলনা সার্কিট হাউজ সম্মেলন কক্ষে যুবকদের আত্মকর্মসংস্থানের লক্ষ্যে ক্যাপাসিটি বিল্ডিং প্রকল্পের আওতায় সফল উদ্যোক্তা উপকার ভোগীদের সাথে মতবিনিময় সভায় প্রধান অতিথি হিসেবে যোগদেন। সেখানে তিনি তথ্য প্রযুক্তি বিষয়ে শিক্ষিত তরুন-তরুনীদের উন্নত প্রশিক্ষণ ও কর্মসংস্থান সৃষ্টির লক্ষে খুলনাতে শীঘ্রই আইটি পার্ক নির্মাণের আশ্বাস প্রদান করেন। এর আগে তিনি খুলনা শিশু হাসপাতাল, নির্মিতব্য শেখ রাসেল ইকো পার্ক পরিদর্শন করেন।

মোঃ নজিবুর রহমান রূপসা উপজেলার নৈহাটি ইউনিয়নের সামন্তসেনা গ্রামে প্রধানমন্ত্রীর আশ্রয়ণ প্রকল্পের অর্থায়ণে নির্মিত দুটি ঘর উপকারভোগীদের কাছে হস্তান্তর করেন। এছাড়া মূখ্য সচিব খুলনা অফিসার্স ক্লাবে আয়োজিত এক অনুষ্ঠানে পুনর্বাসিত ভিক্ষুকদের মাঝে উপকরণ বিতরণ করেন।

প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ের গর্ভনেন্স ইনোভেশন ইউনিটের সহযোগিতায় এবং খুলনা বিভাগীয় প্রশাসনের আয়োজনে এই কর্মশালা ও অন্যান্য অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি ছিলেন সমাজ কল্যাণ মন্ত্রণালয়ের সিনিয়র সচিব মিজ্ জুয়েনা আজিজ, নৌপরিবহন মন্ত্রালয়ের সচিব মোঃ আব্দুস সামাদ, স্থানীয় সরকার ও পল্লী উন্নয়ন বিভাগের সচিব মোঃ কামাল উদ্দিন তালুকদার এবং স্বাস্থ্য সেবা বিভাগের সচিব মোঃ আসাদুল ইসলাম। কর্মশালার প্রেক্ষাপট বিশ্লেষণ করেন প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ের গভর্নেন্স ইনোভেশন ইউনিটের মহাপরিচালক মোঃ আশরাফ উদ্দিন। সভাপতিত্ব করেন খুলনা বিভাগীয় কমিশনার লোকমান হোসেন মিয়া। ধন্যবাদ জ্ঞাপন করেন খুলনা জেলা প্রশাসক মোহাম্মদ হেলাল হোসেন।

 

শেয়ার করুন:

Leave a Reply

Your email address will not be published.