সাতক্ষীরায় ছাত্রলীগ-যুবলীগ সংঘর্ষ, ১৪৪ ধারা জারি

 

 

দক্ষিণাঞ্চল ডেস্ক

সাতক্ষীরার দেবহাটায় ছাত্রলীগ ও যুবলীগের সংঘর্ষের পর এলাকায় শান্তি শৃঙ্খলার স্বার্থে ১৪৪ ধারা জারি করেছে উপজেলা প্রশাসন। দেবহাটা উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ও নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট ইকবাল হোসেন জানান, বুধবার সকাল থেকে গোয়ালাবাজারসহ আশপাশের এলাকায় ১৪৪ ধারা জারি করা হয়েছে। পরবর্তী নির্দেশ না দেওয়া পর্যন্ত তা বলবৎ থাকবে।

দেবহাটা থানার ওসি বিপ্লব কুমার সাহা জানান, অভ্যন্তরীণ বিরোধকে কেন্দ্র করে মঙ্গলবার সরকারি খানবাহাদুর আহছানউল­া কলেজ, সখিপুর মোড় ও পারুলিয়াতে দুই পক্ষের মধ্যে দফায় দফায় হামলা-পাল্টা হামলা ও সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে।

এতে উপজেলা ছাত্রলীগের সভাপতি সাইফুর রহমান সুমনের বাবা শামছুর রহমান খোকন, সরকারি খানবাহাদুর আহছানউল­া কলেজ ছাত্রলীগের সভাপতি মো. ফয়জুল­াহ, সাংগঠনিক সম্পাদক আসিফ, ছাত্রলীগ নেতা রনি আহমেদসহ দুই পক্ষের বেশ কয়েকজন নেতা-কর্মী আহত হন বলে জানান এ পুলিশ কর্মকর্তা।

তিনি বলেন, বর্তমানে উপজেলা জুড়ে থমথমে অবস্থা বিরাজ করছে। নতুন করে সংঘর্ষ এড়াতে এবং জননিরাপত্তার স্বার্থে উপজেলার সখিপুর মোড়, সরকারি খানবাহাদুর আহছানউল­া কলেজ মোড়, পারুলিয়া শহীদ আবু রায়হান চত্বরসহ বিভিন্ন পয়েন্টসহ ঝুঁকিপূর্ণ এলাকায় অতিরিক্ত পুলিশ মোতায়ন করা হয়েছে। এ বিষয়ে জানতে দেবহাটা উপজেলা যুবলীগের সভাপতি মিজানুর রহমান মিনুর সঙ্গে মোবাইল ফোনে যোগাযোগ করা হলে সাংবাদিক পরিচয় পেয়ে তিনি লাইন কেটে দেন।

আপরদিকে দেবহাটা উপজেলা ছাত্রলীগের সভাপতি সাইফুর রহমান সুমনের মোবাইলে ফোন করা হলে সজীব নামের এক ব্যক্তি রিসিভ করেন বলেন, সুমন ব্যস্ত আছেন পরে যোগাযোগ করেন।

জেলা ছাত্রলীগের সভাপতি রেজাউল ইসলাম রেজা বলেন, ছাত্রলীগের সঙ্গে যুবলীগ সভাপতি মিজানুর রহমান মিনুর বিরোধকে কেন্দ্র করে দেবহাটায় উত্তেজনাকর পরিস্থিতির সৃষ্টি হয়েছে। আমরা বিষয়টি মিমাংসার চেষ্টা করছি।

 

 

 

 

শেয়ার করুন:

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *