সদর থানা আ’লীগের বিশেষ বর্ধিত সভা অনুষ্ঠিত

খবর বিজ্ঞপ্তি
খুলনা মহানগর আওয়ামী লীগ সভাপতি ও সিটি মেয়র আলহাজ্ব তালুকদার আব্দুল খালেক বলেছেন, খুলনা সিটি কর্পোরেশন সহ দক্ষিণ পশ্চিমাঞ্চলের উন্নয়নে মন্ত্রী, এমপিসহ আমাকে সহযোগিতা করতে হবে। আর এ অঞ্চলের উন্নয়নে যারা প্রতিবন্ধকতার সৃষ্টি করবে তাদের বিরুদ্ধে কঠোর অবস্থান গ্রহণ করা হবে। তিনি বলেন, সদর থানা আওয়ামী লীগের ১২ ফেব্রæয়ারির সংবর্ধনা হবে উন্নয়ন সহ সকল কাজের দিক নির্দেশনা। আপনাদের মূল্যবান দিক নির্দেশনা নিয়েই আমরা খুলনাসহ দক্ষিণাঞ্চলকে পরিকল্পিত ভাবে সাজাতে চাই। আমাদের মন্ত্রী এমপিরা একযোগে উন্নয়নে কাজ করবে। আপনারা ধৈর্য্য সহকারে সরকারের উন্নয়নকে এগিয়ে নিতে আমাদের সহযোগিতা করবেন। তিনি বলেন, কারোর কথায় বিভ্রান্ত না হয়ে দলের এবং দেশের স্বার্থে এই ত্যাগ স্বীকার করতে হবে।
গতকাল শনিবার সন্ধ্যা সাড়ে ৬টায় দলীয় কার্যালয়ে সদর থানা আওয়ামী লীগ আয়োজিত বিশেষ বর্ধিত সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন। সদর থানা আওয়ামী লীগ সভাপতি এ্যাড. মো. সাইফুল ইসলামের সভাপতিত্বে এবং সাধারণ সম্পাদক কাউন্সিলর ফকির মো. সাইফুল ইসলামের পরিচালনায় বক্তব্য রাখেন, আওয়ামী লীগ নেতা এ্যাড. আইয়ুব আলী শেখ, শ্যামল সিংহ রায়, মো. মুন্সি মাহবুব আলম সোহাগ, অধ্যক্ষ শহিদুল হক মিন্টু, মাহাবুবুল আলম বাবলু মোল্লা, কাউন্সিলর শামছুজ্জামান মিয়া স্বপন, আবুল কাশেম মোল্লা, রনজিত কুমার ঘোষ, কাউন্সিলর লুৎফুন নেছা লুৎফা, শাহ মো. জাকিউর রহমান জাকির, সাব্বির আহমেদ শুভ, চৌধুরী মিনহাজ উজ জামাল সজল, জামিরুল হুদা জহর, গাজী মোশাররফ হোসেন, ফয়েজূল ইসলাম টিটো, আতাউর রহমান শিকদার রাজু, শেখ এশরুল হক, গোপাল চন্দ্র সাহা, মো. শিহাব উদ্দিন, এ্যাড. শামীম মোশাররফ, মো. শামীমুর রহমান শামীম, এ্যাড. তারিক মাহমুদ তারা, সমীর কৃষ্ণ হীরা, এ্যাড. একেএম শাহজাহান কচি, এ্যাড. জহিরুল ইসলাম পলাশ, এ্যাড. কে এম ইকবাল, এ্যাড. আহসান হাবীব, বাদল সরদার, এমরানুল হক বাবু, আউয়াল হোসেন ছোটন, নজরুল ইসলাম, শফিকুল ইসলাম মুন্না, নূরীনা রহমান বিউটি, কাউন্সিলর কনিকা সাহা, ফেরদৌসী আলম রিতা, শাহানুর বেগম, শিরীনা হান্নান, ফেরদৌসী সাথী, শবনম মোস্তারী বকুল, সুপ্তির হাসান, নাছরিন সুলতানা, মাকসুদা খানম পাখি, রেখা আহসান, আরমিন সুলতানা জুঁই, হেনা আলমগীর, নাছিমা আহমেদ মিনু।
সভায় আগামী ১২ ফেব্রæয়ারি শহীদ হাদিস পার্কের সম্বর্ধনা সভা সফল করতে গুরুত্বপূর্ন সিদ্ধান্ত গ্রহণ করা হয়। সভায় সকল ওয়ার্ড ও সহযোগী সংগঠনকে মিছিল সহকারে যথাসময়ে উপস্থিত থাকার সিদ্ধান্ত হয়।

শেয়ার করুন:

Leave a Reply

Your email address will not be published.