শিরোমণি সেফা মিনারেল ওয়াটার কোম্পানীতে চাঁদা নিতে গিয়ে কথিত পাঁচ সাংবাদিক আটক

গ্রেফতারকৃতদের বিরুদ্ধে চাঁদাবাজিসহ বিভিন্ন অভিযোগ

 

খানজাহান আলী থানা প্রতিনিধি

নগরীর খানজাহান আলী থানাধীন গিগাতলা দক্ষিণপাড়া সেফা মিনারেল ওয়াটার কোম্পানীতে ২১ এপ্রিল রবিবার চাঁদা না পেয়ে কোম্পানীর ম্যানেজার এবং মালিক হযরত মাওঃ আবুল বাশারকে মারধর করায় এলাকাবাসীর হাতে কথিত পাঁচ সাংবদিককে আটক করে খানজাহান আলী থানা পুলিশের কাছে সোর্পাদ করেছে। রাতে মামলা হওয়ার কথা থাকলেও স্থানীয়দের এবং উভয় পক্ষের উপস্থিতিতে মুচলেকা এবং জিডির মাধ্যমে তাদেরকে ছেড়ে দেওয়া হয়েছে।

কোম্পানীর মালিক শিরোমণি দক্ষিণপাড়া বায়তুন নুর জামে মসজিদের পেশ ইমাম হযরত মাওঃ আবুল বাশার জানান, সিআইএন টিভি২৪ এর সম্পাদক পরিচয়দানকারী আবু হামজা বাধন, তার পিতা দৈনিক ঢাকা রির্পোটের সাংবাদিক আবু দাউদ ইমরান, সিআইএন ২৪ টিভি প্রতিনিধি শেখ ইউনুছ আলী, নিজস্ব প্রতিনিধি আবু জাফর এবং সাংবাদিক মোঃ মনিরুজ্জামান বেশ কিছু দিন যাবত ২০ হাজার টাকা চাঁদা দাবী করে আসছিল। দাবীকৃত চাঁদা না পেয়ে দ্ইু দিন আগে এরা কোম্পানীতে এসে ৫০ হাজার টাকা না দিলে ম্যাজিস্ট্রেট দিয়ে সীলগালা করে দেওয়ার হুমকি দেন। রবিবার দুপুর পৌনে দুইটায় কোম্পানীতে এসে তারা টাকা না পেয়ে ম্যানেজার মোঃ জসিমকে মারধর করে। এ সময় আমি ঠেকাতে গেলে আমাকে ধাক্কা দিয়ে ফেলে দেয়। এ খবর এলাকায় ছড়িয়ে পড়লে এলাকাবাসী এগিয়ে এসে তাদেরকে আটক করে থানা পুলিশের কাছে সোপার্দ করেন। তিনি জানান আটককৃতদের বিরুদ্ধে মামলা করার ইচ্ছা থাকলেও এলাকার জনপ্রতিনিধিদের কারণে মামলা করিনি।

স্থানীয় আটরা গিলাতলা ইউনিয়নের ৬নং ওয়ার্ড মেম্বর হাফিজ খান বলেন হুজুর নতুন পানির ব্যবসা শুরু করায় বিভিন্ন অভিযোগ করে কয়েক দফায় কোম্পানীতে এসে চাদাদাবী করে আটককৃতরা। ঘটনার দিন টাকা না দেওয়ায় মালিকের উপর হামলা চালালে স্থানীয়রা তাদেরকে আটক করে পুলিশে সোর্পাদ করে। তিনি আটককৃতদের বিরুদ্ধে চাদাবাজীর বিভিন্ন অভিযোগ করেন।

এদিকে কথিত সাংবাদিক গ্রেফতারের খবর শুনে এলাকার বিভিন্ন মহল সাংবাদিকদের কাছে অভিযোগ করে বলে একটি টিভি চ্যানেলের ভয়ভীতি দেখিয়ে বিভিন্ন প্রতিষ্ঠান এবং ব্যক্তির কাছে থেকে এই গ্রæপটি ব্যাপোক ভাবে এলাকায় চাঁদাবাজী করে। এলাকার আউব আলীর কাছে চাদা দাবী করে, এক সপ্তাহে আগে এক কবিরাজের কাছে দশ হাজার টাকা দাবী করেন, শিরোমণি একটি শিশা কোম্পানির কাছ থেকে ১০ হাজার টাকা নিয়েছে। সম্প্রতি একটি জাতীয় দৈনিকে তাদের চাদাবাজী সংক্রান্ত একট্ িরির্পোট প্রকাশিত হয়েছিলো।

এ বিষয়ে খানজাহান আলী থানার অফিসার্স ইনচার্জ মোঃ শফিকুল ইসলাম বলেন, ঘটনার পর খবর পেয়ে পুলিশ এলাকাবাসীর কাছ থেকে তাদেরকে উদ্ধার করে থানায় নিয়ে আসি। রাতে স্থানীয় জনপ্রতিনিধি এবং উভয় পক্ষের উপস্থিতিতে মুচলেকা এবং জিডির মাধ্যমে তাদেরকে ছেড়ে দেওয়া হয়েছে। আটককৃতদের বিরুদ্ধে খানজাহান আলী থানায় জিডি করা হয়েছে (যার নং ৮৫৯ তাং ২১/৪/১৯)।

 

 

 

শেয়ার করুন:

Leave a Reply

Your email address will not be published.