র‌্যাগিংয়ের দায়ে গোপালগঞ্জে বঙ্গবন্ধু বিশ্ববিদ্যালয়ের ৬ শিক্ষার্থী বহিষ্কার

দক্ষিণাঞ্চল ডেস্ক

র‌্যাগিংয়ের অপরাধে ছয় শিক্ষার্থীকে আজীবন বহিষ্কার করেছে গোপালগঞ্জের বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়। বিশ্ববিদ্যালয়ের জনসংযোগ কর্মকর্তা মো. মাহবুবুল হক জানান, সোমবার বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রক্টোরিয়াল বডির জরুরি বৈঠকে দুই শিক্ষার্থীকে র‌্যাগিংয়ের অপরাধে তাদের এ শাস্তি দেওয়ার সিদ্ধান্ত হয়।

বহিষ্কৃতরা হলেন ইলেকট্রনিক্স অ্যান্ড টেলিকমিউনিকেশন ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগের (ইটিই) দ্বিতীয় বর্ষের ছাত্র ঢাকার কোরণীগঞ্জের মো. নুরুল হকের ছেলে মো. শিপন আহম্মেদ, নারায়ণগঞ্জের আড়াইহাজারের তোফাজ্জেল হোসেনের ছেলে মো. শাহিন মিয়া, টাঙ্গাইলের নাগরপুরের মো. আব্দুল হালিমের ছেলে নাদিম ইসলাম, শেরপুরের নকলার তপন কুমার ধরের ছেলে হৃদয় কুমার ধর, ভোলা সদরের সুধাংশু ভূষণ হালদারের চেলে তুর্য্য হাওলাদার ও ফরিদপুরের মধুখালীর মো. আসাদুজ্জামান খানের ছেলে আশিকুজ্জামান লিমন।

প্রক্টর অশিকুজ্জামান ভূঁইয়া বলেন, গত ২ ফেব্র“য়ারি সন্ধ্যা ৭টা থেকে রাত ১২টা পর্যন্ত ওই ছয় শিক্ষার্থী কৃষি বিভাগের প্রথম বর্ষের দুই শিক্ষার্থীকে শারীরিক ও মানসিকভাবে টর্চার করে র‌্যাগিংয়ের ঘটনা ঘটায়। পরে তার ভিডিও সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে ছেড়ে দিলে ভাইরাল হয়। বিষয়টি বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসনের নজরে আসে। সেমবার বৈঠক বসিয়ে ঘটনার সতত্যা পাওয়ার পর ছয় শিক্ষার্থীকে আজীবন বহিষ্কার করা হয়। এছাড়া এ ব্যাপারে ছয় শিক্ষার্থীর বিরুদ্ধে আইসিটি আইনে মামলা দায়েরের সিদ্ধান্ত হয়েছে বলে তিনি জানান।

শেয়ার করুন:

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *