মেডিকেল পরীক্ষা ছাড়া শ্রমিকরা সৌদি যেতে পারবেন না

দক্ষিণাঞ্চল ডেস্ক
কোনো বাংলাদেশি শ্রমিক মেডিকেল পরীক্ষা ছাড়া সৌদি আরব যেতে পারবেন না বলে সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে। গতকাল রবিবার রিয়াদে সৌদি শ্রম উপমন্ত্রী ড. আবদুল­াহ বিন নাসের বিন মোহাম্মদ আবুথুনাইনের সঙ্গে বাংলাদেশের প্রবাসী কল্যাণ ও বৈদেশিক কর্মসংস্থান বিষয়ক প্রতিমন্ত্রী ইমরান আহমদের বৈঠকে এ সিদ্ধান্ত হয়।
রিয়াদের বাংলাদেশ দূতাবাস থেকে পাঠানো এক বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, সৌদি আরবের উপমন্ত্রীর সঙ্গে বৈঠকে সে দেশে কর্মরত বাংলাদেশের শ্রমিকদের বিভিন্ন সমস্যা ও এর সমাধান নিয়ে আলোচনা করেন প্রবাসী কল্যাণ প্রতিমন্ত্রী। এ সময় সৌদি আরবে নিযুক্ত বাংলাদেশের রাষ্ট্রদূত গোলাম মসীহ উপস্থিত ছিলেন। দূতাবাসের মিশন উপপ্রধান ড. নজরুল ইসলামসহ অন্য কর্মকর্তারাও বৈঠকে যোগ দেন। এছাড়া প্রবাসী কল্যাণ মন্ত্রণালয়ের যুগ্মসচিব ফজলুল করিম ও যাহিদ হোসেন এ সময় উপস্থিত ছিলেন। প্রবাসী কল্যাণ প্রতিমন্ত্রী সৌদি আরবের পরিবর্তিত পরিস্থিতিতে এখানে কর্মরত বাংলাদেশি শ্রমিক ও গৃহকর্মীদের বিভিন্ন সমস্যা নিয়ে আলোচনা করেন।
বাংলাদেশের শ্রমিকদের সমস্যা সমাধানে বছরে চারবার যৌথ কারিগরি সভা করার বিষয়ে বৈঠকে আলোচনা করা হয়। আসন্ন রমজান মাসের আগেই যৌথ কারিগরি কমিটির সভা অনুষ্ঠিত হতে পারে বলে বৈঠকে সিদ্ধান্ত হয়। এছাড়া বৈঠকে ভিসা ট্রেডিং বন্ধের বিষয়ে দুই দেশ একমত পোষণ করে।
সভায় সৌদি আরবে কর্মরত বাংলাদেশি গৃহকর্মীদের জন্য দূতাবাসের তত্ত¡াবধানে পরিচালিত সেফ হাউজের বিষয়ে দেই দেশ একত্রে কাজ করবে বলে জানায়।
এছাড়া সভায় কোনো বাংলাদেশি শ্রমিক যথাযথ মেডিকেল পরীক্ষা ছাড়া সৌদি আরব যেতে পারবে না বলে সিদ্ধান্ত হয়। সভায় সৌদি আরবে কর্মরত শ্রমিকদের স্বার্থ সুরক্ষার জন্য বিদ্যমান ‘মুসানেদ’ সফটওয়্যারটির মান উন্নত করার বিষয়ে আলোচনা হয়। সৌদি শ্রম উপমন্ত্রী বাংলাদেশের দক্ষ জনশক্তির প্রশংসা করেন এবং সমস্যার সমাধানের আশ্বাস দেন।
বৈঠক শেষে প্রবাসী কল্যাণ প্রতিমন্ত্রী ইমরান আহমদ, রিয়াদের কূটনৈতিকপাড়ায় বাংলাদেশ দূতাবাসের নবনির্মিত ভবন পরিদর্শন করেন। এ সময় তিনি কনস্যুলার সেবা নিতে আসা প্রবাসী বাংলাদেশিদের সঙ্গে মতবিনিময় করেন।

শেয়ার করুন:

Leave a Reply

Your email address will not be published.