মেঘনায় মায়ের মরদেহ উদ্ধার, এখনও নিখোঁজ ছেলে

দক্ষিণাঞ্চল ডেস্ক
ছেলে পড়ে যাওয়ার পর মেঘনায় ঝাঁপ দেওয়া সেই মায়ের মরদেহ উদ্ধার করা হয়েছে; তবে ছেলে এখনও নিখোঁজ। গতকাল মঙ্গলবার বিকালে মুন্সীগঞ্জ সদরের চরকেওয়ার ইউনিয়নের আলীরটেক কাউয়াদি গ্রাম সংলগ্ন মেঘনা নদী থেকে পুলিশ কহিনুর রহমান ইভার (৩০) মরদেহ উদ্ধার কর। নিখোঁজ রয়েছে তার তিন মাস বয়সী ছেলে মোহাম্মদ।
পুলিশ জানিয়েছে, কহিনুর রহমান ইভা মুন্সীগঞ্জ শহরের শিলমন্দি এলাকার জিয়াউর রহমানের স্ত্রী। জিয়াউর রহমান একটি কোরিয়ান কোম্পানির প্রকৌশলী। স্ত্রী-সন্তান নিয়ে তিনি ঢাকার মোহাম্মদপুরে ভাড়া বাড়িতে থাকেন। এ ঘটনায় জিয়াউর রহমান সোমবার মোহাম্মদপুর থানায় একটি সাধারণ ডায়েরি করেছেন বলে চর আব্দুল­াহ নৌ-ফাঁড়ির ইনচার্জ বাচ্চু মিয়া জানান।
বাচ্চু মিয়া বলেন, এমভি ইমাম হাসান-২ নামের লঞ্চটি সোমবার বিকালে ঢাকার সদরঘাট থেকে চাঁদপুর যাচ্ছিল। কহিনুর ছেলেকে নিয়ে ওই লঞ্চে করে যাচ্ছিলেন মুন্সীগঞ্জ। কিন্তু লঞ্চ থেকে তিনি মুন্সীগঞ্জ নামতে না পারায় চাঁদপুর এলাকায় চলে যান। লঞ্চটি চাঁদপুরের ষাটনল এলাকায় পৌঁছালে কোনোভাবে কহিনুরের কোল থেকে তার ছেলে মোহাম্মদ নদীতে পড়ে যায়। তখন কহিনুর মেঘনায় ঝাঁপ দিলে তিনিও নিখোঁজ হন।
বাচ্চু মিয়া জানান, মঙ্গলবার বিকালে মেঘনা নদীতে ভাসমান অবস্থায় কহিনুর রহমান ইভার মরদেহ উদ্ধার করা হয়। পরে মৃতদেহ স্বজনদের কাছে হস্তান্তর করা হয়েছে।

শেয়ার করুন:

Leave a Reply

Your email address will not be published.