মহেশ্বরপাশায় আদালতের আদেশ উপেক্ষা করে এক পরিবারকে উচ্ছেদ!

 

খানজাহান আলী থানা প্রতিনিধি

নগরীর দৌলতপুর থানাধীন মহেশ্বরপাশা শাহ পাড়ার শামিম আক্তার গং উচ্ছ আদালতের আদেশ উপেক্ষা করে সন্ত্রনী বাহিনী দিয়ে অসহায় মাজেদ আলী মোল্যার পরিবারকে জোরপূর্বক উচ্ছেদের অভিযোগ পাওয়া গেছে।

অভিযোগে জানা গেছে, ২০০৩ সালে খুলনার অর্থ ঋণ আদালতের মাধ্যমে মহেশ্বরপাশা মৌজা আরএস ২৯৫৮ খতিয়ানের ৫৬৮০ দাগের দুই শতক এবং ৫৬৮১ দাগের তিন শতক মোট ৫ শতক সহ সাড়ে ১২ শতক জমি প্রকাশ্য নিলামে মাধ্যমে ক্রয় করে। পরবর্তিতে অভাবের তাড়নায় ক্রয়কৃত জমির মধ্যে থেকে সাড়ে ৭ শত জমি বিক্রয় করে ৫ শতক জমিতে নিজও দখলে বসবাস করছিলেন।

প্রতিবেশী শামিম আক্তার, সেলিম আক্তার, সোহেল আক্তার, শাহিন আক্তার, শাকিল আক্তার, মোছাঃ শাহানা  আক্তার উভয় পিতা মৃত সাহব উদ্দিন এবং তাহাদের মাতা সুলতানা বেগম অবৈধভাবে জমি দখলের উদ্দেশ্যে মাজেদ আলীর মোল্যার জমিতে অবৈধ প্রবেশ করে তার বাড়ী দখলের চেষ্টা করে। এ ব্যাপারে মাজেদ আলী খুলনা যুগ্ন জেলা জজ প্রথম আদালতে মামলা দায়ের করেন (মামলা নং ১৮১/১৮)। পরবর্তিতে আদালত জমির উপর নিষেধাজ্ঞা জারী করলে আদালতের নিষেধাজ্ঞা উপেক্ষা করে শামিম আক্তার গং গত ২৯ মার্চ এবং গত পহেলা বৈশাখের দিন মাজেদ আলী বাসায় হামলা চালিয়ে বাড়ীঘর ভাংচুর করে মাজেদের পরিবারের বাইরে বের হওয়ার সরকারি রাস্তাসহ সকল পথ জোরপূর্বক বন্ধ করে দেয়। উচ্চ আদালত এবং নিম্ম আদালতসহ স্থানীয় জনপ্রতিনিধিদের শালিশী বৈঠক অমান্য করে সম্পূর্ণ অবৈধ ভাবে উচ্ছেদের পায়তারা চালাচ্ছে। অসহায় মাজেদ আলী মোল্যা সুুুুুুুু-বিচারের আশায় আদালতের দারে দারে ঘুরে বেড়াচ্ছেন।

 

 

শেয়ার করুন:

Leave a Reply

Your email address will not be published.