March 2, 2024
আন্তর্জাতিক

ভারতে ছেলেধরা সন্দেহে অন্তসত্ত্বা নারীকে গণপিটুনি

দক্ষিণাঞ্চল ডেস্ক

ভারতের রাজধানী দিলি­তে ছেলেধরা সন্দেহে গণপিটুনির শিকার হয়েছেন এক অন্তঃসত্ত¡া নারী। বিবিসি কে পুলিশ জানিয়েছে, ২৫ বছর বয়সী ওই নারীর অবস্থা এখন কিছুটা ভাল। ঘটনার সঙ্গে জড়িত তিনজনকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে।

দিলি­সহ বেশ কিছু প্রদেশে স¤প্রতি ছেলেধরা গুজবে এমন গণপিটুনির ঘটনা হরহামেশা ঘটছে। যার সর্বশেষ উদাহরণ এ ঘটনা। গত বছরও ছেলেধরা সন্দেহে গণপিটুনিতে একজনকে হত্যার ঘটনা ঘটেছিল ভারতে।

অন্তঃসত্ত¡া ওই নারীকে গণপিটুনির একটি ভিডিও ফুটেজে দেখা গেছে, বেশ কিছু মানুষ তাকে ঘিরে রেখেছে। ছেলেধরা বলে দাবি করে সবাই মিলে ওই নারীকে বেধড়ক পেটাচ্ছে।

দিলি­ সংলগ্ন উত্তরপ্রদেশে সবচেয়ে বেশি গণপিটুনির ঘটনা ঘটেছে। পুলিশের মহাপরিচালক ওপি সিং বিবিসি’কে বলেন, গত ২৯ আগস্ট পর্যন্ত গণপিটুনির ৪৬টি ঘটনা ঘটেছে। সেসব ঘটনায় যারা গণপিটুনির শিকার হয়েছেন তাদের বিরুদ্ধে ছেলেপাচারের প্রমাণ পাওয়া যায়নি।”

ওপি সিং বলেন, আমরা মানুষকে অনুরোধ করছি তারা যেন গুজবে কান না দেন। এমন সন্দেহ হলে পুলিশকে ফোন করে জানান অথবা সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে যোগাযোগ করুন। আগস্টেই দিলি­র গাজিয়াবাদে ছয়টি গণপিটুনির ঘটনা রেকর্ড করা হয়েছে।

পুলিশের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তা নিরাজ জাদুয়ান বলেন, এমনও ঘটনা ঘটেছে যে, একদল মানুষ রাস্তায় দাদির সঙ্গে নাতিকে দেখেও ছেলেধরা সন্দেহে দাদিকে পিটিয়েছে। দাদির থেকে নাতির গায়ের রঙ আলাদা হওয়ায় এমন নির্মমতার শিকার হয়েছেন দাদি।

 

শেয়ার করুন:

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *