February 21, 2024
আঞ্চলিক

ভবদহে টিআরএম চালুর দাবিতে নওয়াপাড়ায় মানববন্ধন

মল্লিক খলিলুর রহমান, অভয়নগর

ভবদহের জলাবদ্ধার স্থায়ী সমাধানে টিআরএম (টাইডাল রিভার ম্যানেজমেন্ট) চালুসহ ৬ দফা দাবি বাস্তবায়নের লক্ষে যশোরের শিল্প ও বাণিজ্য শহর নওয়াপাড়ায় মানববন্ধন অনুষ্ঠিত হয়েছে। পানি উন্নয়ন বোর্ডের কর্মকাণ্ডে ক্ষোভ প্রকাশ করা হয়েছে। দ্রæত সময়ের মধ্যে দাবি বাস্তবায়ন করা না হলে অনশন কর্মসূচিসহ কঠোর আন্দোলনের হুশিয়ারি দিয়েছেন নেতৃবৃন্দ।

গতকাল রবিবার সকাল ১১টা থেকে দুপুর সাড়ে ১২টা পর্যন্ত চলা এ মানববন্ধন যশোর-খুলনা মহাসড়কের নওয়াপাড়া নূরবাগ বাসস্ট্যান্ডে অনুষ্ঠিত হয়। জলাবদ্ধ এলাকার হাজার হাজার নারী-পুরুষ বিভিন্ন প্লাকার্ড হাতে মানববন্ধনে অংশগ্রহণ করেন। ভবদহ পানি নিস্কাশন আন্দোলন কমিটির আয়োজনে মানববন্ধন অনুষ্ঠানের সভাপতিত্ব করেন ভবদহ জলাবদ্ধতা নিরসন আন্দোলন কমিটি ও অভয়নগর উপজেলা আওয়ামী লীগের আহবায়ক আলহাজ্ব এনামুল হক বাবুল।

মানববন্ধন চলাকালে সহমত পোষণ করে বক্তব্য রাখেন, অভয়নগর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মো. শাহীনুজ্জামান। এছাড়া আরও বক্তব্য রাখেন- অভয়নগর উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান ও উপজেলা আওয়ামী লীগের যুগ্ম আহবায়ক কমিটির নেতা শাহ্ ফরিদ জাহাঙ্গীর, নওয়াপাড়া পৌরসভার মেয়র ও উপজেলা আওয়ামী লীগের যুগ্ম আহবায়ক সুশান্ত কুমার দাস শান্ত, পায়রা ইউপি চেয়ারম্যান ও আন্দোলন কমিটির সদস্য সচিব বিষ্ণুপদ দত্ত, খুলনা ডুমুরিয়া উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি অধ্যক্ষ মফিকুল ইসলাম, তালা উপজেলা পানি উন্নয়ন কমিটির সভাপতি মঈনুল ইসলাম, পাইকগাছা উপজেলা পানি উন্নয়ন কমিটির সভাপতি আব্দুল মান্নান, অভয়নগর উপজেলার সাবেক চেয়ারম্যান মুক্তিযোদ্ধা আব্দুল মালেক মোল্যা, যশোর জেলা পরিষদের প্যানেল চেয়ারম্যান লায়লা খাতুন, মনিরামপুর উপজেলার নেহালপুর ইউপির সাবেক চেয়ারম্যান আলহাজ্ব কামরুজ্জামান, নেহালপুর ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সভাপতি রুহুল আমিন, কুলটিয়া ইউপি চেয়ারম্যান শেখর চন্দ্র, সুন্দলী ইউপি চেয়ারম্যান বিকাশ রায় কপিল, পৌর কাউন্সিলর জাকির হোসেন, সাবেক ইউপি চেয়ারম্যান শিক্ষক ফিরোজ আলম, মুক্তেশ্বরী কলেজের প্রভাষক মদন মহন চক্রবর্তী প্রমুখ।

অনুষ্ঠান সঞ্চালনা করেন অভয়নগর উপজেলা যুবলীগের সাবেক সভাপতি আব্দুর রউফ মোল্যা এবং উপজেলা স্বেচ্ছাসেবক লীগের সাধারণ সম্পাদক মোল্যা আনোয়ার হোসেন।

বক্তারা যশোর পানি উন্নয়ন বোর্ডের কর্মকাণ্ডে ক্ষোভ প্রকাশ করে বলেন- যশোরের অভয়নগরসহ খুলনার ৩৩০ বর্গকিলোমিটার এলাকার প্রায় ২৫ লাখ মানুষের দুঃখ-দুর্দশার নাম ভবদহ। ২৭টি বিলের সাথে জড়িত লাখ লাখ পরিবার এ জলাবদ্ধার শিকার হয় প্রতি বছর। ভবদহ এলাকার ¯øুইস গেটগুলো বিকল হয়ে আছে। সব কয়টি নদীতে নাব্যতা সংকট। দ্রæত সময়ের মধ্যে ব্যবস্থা গ্রহন করা না হলে চলতি বর্ষা মৌসুমে ভয়াবহ জলাবদ্ধতা সৃষ্টি হবে। বিপদগ্রস্থ হবে ২৫ লাখ মানুষ, গবাদিপশু, ফসলি জমি ও হাজার মৎস্য ঘের। ভবদহ সমস্যার সমাধানের নামে প্রজেক্টের পর প্রজেক্ট গ্রহণ করে যুগ যুগ ধরে কোটি কোটি টাকা শুধু লুটপাটই হয়েছে, ন্যুনতম সমাধান হয়নি।

ভবদহ পানি নিস্কাশন আন্দোলন কমিটি ও অভয়নগর উপজেলা আওয়ামী লীগের আহবায়ক আলহাজ্ব এনামুল হক বাবুল বলেন, জলাবদ্ধতার স্থায়ী সমাধানে টিআরএম এর বিকল্প নেই। উজানের সাথে সংযোগ স্থাপন এবং বিল কপালিয়াসহ খাল-বিলে টাইডাল রিভার ম্যানেজমেন্টে (টিআরএম) চালু করতে হবে। শ্রীনদী, হরিহর নদী, টেকা নদী, মুক্তেশ্বরী নদীর ভরাট হওয়া তলদেশের মাটি কেটে পাড় বাঁধানোর ব্যবস্থা করতে হবে। তিনি হুশিয়ারি দিয়ে বলেন ঘোষিত দাবিগুলো দ্রæত বাস্তবায়ন করা না হলে জাতীয় প্রেস ক্লাবের সামনে মানববন্ধ, রাজপথ-রেলপথ অবরোধ, অনশনসহ কঠোর আন্দোলনের মধ্যদিয়ে হত দরিদ্র ও পানিবন্দি অসহায় ভবদহবাসীর ভাগ্যে ফিরিয়ে আনা হবে। প্রয়োজনে রক্ত দিয়ে হলেও দাবি বাস্তবায়ন করা হবে।

 

 

শেয়ার করুন:

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *