বৈরী আবহাওয়ায় সেন্টমার্টিনে ২ হাজার পর্যটক আটকা

দক্ষিণাঞ্চল ডেস্ক
দুর্যোগপূর্ণ আবহাওয়ার কারণে টেকনাফ-সেন্টমার্টিন নৌরুটে পর্যটকবাহী জাহাজ চলাচল বন্ধ থাকায় অন্তত দুই হাজার পর্যটক আটকা পড়েছে সেন্টমার্টিনে। কক্সবাজার আবহাওয়া অফিস জানিয়েছে, মৌসুমী বায়ুর প্রভাবে দুর্যোগপূর্ণ আবহাওয়ার কারণে সোমবার টেকনাফে ঝড়ো হাওয়া ও বজ্রপাতসহ মাঝারি আকারের বৃষ্টিপাত হয়েছে। মঙ্গলবারও গুড়ি গুড়ি এবং মাঝারি আকারের বৃষ্টিপাতের সম্ভাবনা রয়েছে।
টেকনাফ উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) রবিউল হাসান জানান, সোমবার সকালে ঝড়ো হাওয়া ও বজ্রপাতসহ মাঝারি আকারের বৃষ্টিপাত হয়েছে। এতে বেশকিছু কাঁচা ঘরবাড়ি, পানের বরজ, লবণ মাঠ ও সহ ফসলের ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে।
সোমবার সকালে দুর্যোগপূর্ণ আবহাওয়ার কারণে টেকনাফ-সেন্টমার্টিন নৌরুটে কোন পর্যটকবাহী কোনো জাহাজ সেন্টমার্টিনের উদ্দ্যেশে ছেড়ে যায়নি। ফলে রোববার থেকে সেন্টমার্টিনে অবস্থানকারী অন্তত দুই হাজার পর্যটক আটকা রয়েছেন।
ইউএনও বলেন, চলতি পর্যটন মৌসুমে টেকনাফ-সেন্টমার্টিন নৌরুটে প্রতিদিন চারটি পর্যটকবাহী জাহাজ চলাচল করছে। এসব জাহাজে প্রতিদিন পাঁচ হাজারের বেশি পর্যটক যাতায়ত করে। এদের মধ্যে অনেকে রাত্রিযাপনের জন্য সেন্টমার্টিন অবস্থান করেন। আবহাওয়ার পরিস্থিতি স্বাভাবিক হলেই পুনরায় জাহাজ চলাচল শুরু হবে বলে জানান রবিউল।
সেন্টমার্টিনের স্থানীয় ইউপি চেয়ারম্যান নুর আহমদ বলেন, সেন্টমার্টিন দ্বীপে বাণিজ্যিকভাবে গড়ে ওঠা ছোট বড় ৮৪টি হোটেল রয়েছে। এসব হোটেলে রোববার থেকে রাত্রিযাপনের জন্য অন্তত দুই হাজার পর্যটক বর্তমানে অবস্থান করছেন। সোমবার সকালে টেকনাফ থেকে সেন্টমার্টিনের উদ্দ্যেশে কোনো জাহাজ না ছাড়ায় এসব পর্যটক আটকা পড়েছে। জাহাজ চলাচল শুরু হলেই তারা টেকনাফ ফিরতে পারবে।”
তবে আটকা পর্যটকদের যাতে কোনো অসুবিধা না হয় সেজন্য হোটেল কর্তৃপক্ষসহ সংশ্লিষ্টদের ব্যবস্থা নিতে নির্দেশনা দেওয়া হয়েছে বলে জানান ইউপি চেয়ারম্যান নুর আহমদ। আবহাওয়া অধিদপ্তর কক্সবাজার কার্যালয়ের সহকারী আবহাওয়াবিধ মোহাম্মদ শহীদুল­াহ বলেন, ঋতু পরিবর্তনের পূর্ববর্তী সময়ে সচরাচর মৌসুমী বায়ুর প্রভাবে আকস্মিকভাবে ঝড়ো হাওয়াসহ গুড়ি গুড়ি ও মাঝারি আকারের বৃষ্টিপাত হয়ে থাকে। এতে অনেক সময় বজ্রপাতের ঘটনাও ঘটে। মৌসুমী বায়ুর প্রভাবে মঙ্গলবারও গুড়ি গুড়ি ও মাঝারি আকারের বৃষ্টিপাতের সম্ভাবনা রয়েছে। তবে এতে ঝড়ো হাওয়ার কারণে আবহাওয়া দুর্যোগপূর্ণ হয়ে ওঠার সম্ভাবনা নেই।

শেয়ার করুন:

Leave a Reply

Your email address will not be published.