বিশ্বকাপে আবারও আলিম দারের শিকার বাংলাদেশ!

 

 

ক্রীড়া ডেস্ক

বাংলাদেশের বিপক্ষে আবারও বাজে সিদ্ধান্ত দিয়ে বিতর্কের জন্ম দিলেন পাকিস্তানের আম্পায়ার আলিম দার। তার সাথে যেন ‘বিকর্কিত’ শব্দটি অঙ্গাঅঙ্গি ভাবে জড়িত। প্রতিপক্ষ যখন বাংলাদেশ তখন যেন তা আরও প্রকটভাবে ফুটে ওঠে। ২০১৫ বিশ্বকাপের পর এবারের বিশ্বকাপেও বাংলাদেশের বিপক্ষে বিতর্কের জন্ম দিলেন আলিম দার। যেখানে বলি হলে টাইগার ওপেনার লিটন দাশ।

দলীয় পঞ্চম ওভারে মুজিব-উর-রহমানের বলে শর্ট কাভার থেকে ক্যাচ নেন হাশমতউল­াহ শাহিদী। মাঠের আম্পায়ার রিচার্ড ক্যাটেলবার্গ ও মাইকেল গফ নিশ্চিত ছিলেন না ক্যাচটি ধরা হয়েছে কিনা। স্মরণাপন্ন হন টিভি আম্পায়ারের। রিপ্লেতে পরিস্কার দেখা যায়, ধরার সময় বলটি শহিদীর হাত ছুঁয়ে মাটি স্পর্শ করেছে।

অনেকক্ষণ ধরে দেখার পরও টিভি আম্পায়ার আলিম দার নিশ্চিত হতে পারছিলেন না, এটি আউট কিনা। তবে আউটের সিদ্ধান্ত দেওয়ার ক্ষেত্রে ‘বেনিফিট অব ডাউট’ সবসময় ব্যাটসম্যানের পক্ষেই কথা বলে। কিন্তু মাঠের আম্পায়ারদের সফট সিগনালের ওপর ভিত্তি করে আলিম দার লিটনকে আউট ঘোষণা করেন! বিশ্বকাপে বাংলাদেশের বিপক্ষেই কেন এই কেন তাকে বিতর্কিত সিদ্ধান্ত দিতে হবে এই প্রশ্নের উত্তর কারও জানা নেই।

এর আগে ২০১৫ বিশ্বকাপে ভারতের বিপক্ষে রোহিত শর্মার আউট নিয়েও বিতর্কিত সিদ্ধান্ত দেন আলিম দার। রুবেল হোসেনের করা ফুলটস বল বলে রোহিত শর্মা আউট হলেও লেগ আম্পায়ার হিসেবে তিনি ‘নো বল’ দেন। পরে টিভি রিপ্লেতে দেখা যায় সেটি নো বল ছিল না। সেই সিদ্ধান্ত নিয়ে ব্যাপক ভাবে সমালোচিত হন আলিম দার। বিশ্বকাপের মতো আসরে কেন তাকে এমন বিতর্কিত সিদ্ধান্ত দিতে হবে তা স্বয়ং আলিম দারই ভালো জানেন!

শেয়ার করুন:

Leave a Reply

Your email address will not be published.