বনানীতে আহত ফায়ারম্যান রানাকে সিঙ্গাপুরে প্রেরণ

 

দক্ষিণাঞ্চল ডেস্ক

বনানীর এফ আর টাওয়ারে অগ্নিকাণ্ডের ঘটনায় উদ্ধারকাজ চালানোর সময় গুরুতর আহত ফায়ার সার্ভিস কর্মী সোহেল রানাকে উন্নত চিকিৎসার জন্য সিঙ্গাপুরে পাঠানো হচ্ছে। ফায়ার সার্ভিস ও সিভিল ডিফেন্সের উপ-পরিচালক দেবাশীষ বর্ধন জানান, শুক্রবার সন্ধ্যায় একটি এয়ার অ্যাম্বুলেন্সে করে ফায়ারম্যান রানাকে সিঙ্গাপুরে পাঠানো হবে।

গত ২৮ মার্চ ওই ভবনে উদ্ধারকাজ চালানোর সময় দুর্ঘটনায় রানার পা ভেঙে যায়, পেটেও গুরুতর আঘাত পান তিনি। সেদিন থেকেই তিনি ঢাকার সম্মিলিত সামরিক হাসপাতালের নিবিড় পরিচর্যাকেন্দ্রে চিকিৎসাধীন ছিলেন।

দেবাশীষ বর্ধন বলেন, সিএমএইচের চিকিৎসকদের পরামর্শেই রানাকে সিঙ্গাপুরে নেওয়া হচ্ছে। তারা অনেক চেষ্টা করেছেন। প্রতিদিন চার ব্যাগ রক্ত দেওয়া হচ্ছিল। কিন্তু প্রত্যাশা অনুযায়ী উন্নতি হচ্ছিল না। সে কারণে উন্নত চিকিৎসার জন্য সিঙ্গাপুরে নেওয়ার পরামর্শ দিয়েছেন তারা।

তবে সিঙ্গাপুরের কোন হাসপাতালে রানাকে পাঠানো হচ্ছে, সে তথ্য জানাতে পারেননি দেবাশীষ বর্ধন। তিনি বলেন, এখানে চিকিৎসাধীন অবস্থায় রানার অবস্থার কিছুটা উন্নতি হয়েছিল। কিছুটা সাড়া দিত। কিন্তু পেটের ক্ষতটার জন্য তার খুব সমস্যা হচ্ছিল।

সেদিনের ঘটনার বর্ণনা করে দেবাশীষ বর্ধন বলেন, ২৩ তলা এফআর টাওয়ারে আটকা পড়া মানুষদের ল্যাডারের মাধ্যমে নামাচ্ছিলেন রানা। কিন্তু বাস্কেট বেশি উঠে গিয়েছিল। ওই অবস্থায় আহতদের নামানো যাচ্ছিল না। সোহেল রানা তখন মই বেয়ে নামতে যায়। কিন্তু ওই অবস্থায়ই মই চলতে শুরু করলে রানার ডান পা আটকে গিয়ে কয়েক জায়গায় ভেঙে যায়। সেফটি বেল্টের চাপে পেটের একটা অংশও থেঁতলে যায়। এফ আর টাওয়ারে অগ্নিকাণ্ডের ওই ঘটনায় ২৬ জনের মৃত্যু হয়, আহাত হন ৭৬ জন। আহতদের মধ্যে সোহেল রানাসহ ছয়জন ফায়ার সার্ভিস কর্মী।

 

 

 

শেয়ার করুন:

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *