নির্বাচন নিয়ে দূতাবাসে যাচ্ছে বিএনপি : তোফায়েল

দক্ষিণাঞ্চল ডেস্ক
একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচন বিতর্কিত করতে বিএনপি নানা ‘ষড়যন্ত্র’ করছে বলে অভিযোগ করেছেন আওয়ামী লীগের উপদেষ্টা পরিষদের সদস্য তোফায়েল আহমেদ। গতকাল মঙ্গলবার জাতীয় প্রেস ক্লাবে এক সেমিনারে তিনি বলেন, পৃথিবীর সব দেশেই নির্বাচন নিয়ে বিরোধীরা বিতর্ক তৈরি করতে চায়। বিএনপি এই নির্বাচনকে বিতর্কিত করতে গতকালও কয়েকটি দূতাবাসে গিয়েছে। অতীতেও ষড়যন্ত্র হয়েছিল, এখনও হচ্ছে। বিএনপি এই নির্বাচনকে বিতর্কিত করতে উঠে পড়ে লেগেছে।
গত ৩০ ডিসেম্বর অনুষ্ঠিত একাদশ সংসদ নির্বাচনে নিরঙ্কুশ বিজয় পেয়ে টানা তৃতীয় মেয়াদে ক্ষমতায় এসেছে আওয়ামী লীগ। ওই নির্বাচনে মাত্র ৬টি আসনে জয় পাওয়া বিএনপির নেতাদের অভিযোগ, ভোটে কারচুপি করে তাদের হারানো হয়েছে।
স¤প্রীতি বাংলাদেশ-এর আয়োজনে ‘বাংলা ভাষা আন্দোলন: অস¤প্রদায়িক জাতিসত্তার বিজয়’ শীর্ষক সেমিনারে তোফায়েল দাবি করেন, অসা¤প্রদায়িক বাংলাদেশ গঠনে কাজ করছে আওয়ামী লীগ সরকার।
তিনি বলেন, স্বাধীন বাংলাদেশের মানুষের স্বপ্ন ছিল অসা¤প্রদায়িক বাংলাদেশ। এই অসা¤প্রদায়িক বাংলাদেশ গড়তে আওয়ামী লীগ ক্ষমতায় আসার পর থেকেই কাজ করে যাচ্ছে। এবারের একাদশ জাতীয় সংসদে স্বাধীনতা বিরোধীদের কোনো স্থান হয়নি। অথচ বিএনপি সরকারের সময় মন্ত্রী পর্যন্ত তারা করেছে।
বিএনপি-জামায়াত নেতৃত্বাধীন চারদলীয় জোট সরকার ‘কোনো পরিকল্পনা ছাড়াই’ দেশ চালিয়েছে বলে দাবি করেন সাবেক মন্ত্রী তোফায়েল। তারা ক্ষমতায় থেকে মানুষের উপর জুলুম, নির্যাতন ও সন্ত্রাসী কার্যক্রমেই ব্যস্ত ছিল।
অপরদিকে শেখ হাসিনা নেতৃত্বাধীন আওয়ামী লীগ সরকার পরিকল্পিতভাবে দেশ পরিচালনা করছে দাবি করে তিনি বলেন, ভিশন ২০২১, ভিশন ২০৪১ এবং ২১০০ সালের ভিশনের ডেল্টা প্ল্যান নিয়ে দেশ পরিচালনা করছে বর্তমান সরকার। গত দশ বছরে বঙ্গবন্ধুকন্যা প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে দেশে বিস্ময়কর উন্নয়ন হয়েছে।
বাংলাদেশ এখন বিশ্বের ৪২তম অর্থনীতির দেশ বলে জানান বিগত সরকারের বাণিজ্যমন্ত্রী তোফায়েল। ২০২১ সালে বাংলাদেশ এই তালিকায় ২৬ থেকে ২৮ নম্বরে উঠে আসবে বলে আশা প্রকাশ করেন তিনি। আয়োজক সংগঠনের আহŸায়ক পীযূষ বন্দ্যোপাধ্যায়ের সভাপতিত্বে সেমিনারে মূল প্রবন্ধ উপস্থাপন করেন হারুন হাবীব।

শেয়ার করুন:

Leave a Reply

Your email address will not be published.