দাকোপের বানিশান্তা বাজারবাসী সব হারানোর আতঙ্কে দিশেহারা

মানবিক বিবেচনায় উচ্ছেদের আগে পূর্ন বাসনের দাবী

দাকোপ প্রতিনিধি
সব-হারানোর অজানা আতংকে বানিশান্তা বাজারের ভুমিহীন প্রায় দুই”শত পরিবার। ভাঙ্গন কবলিত দাকোপ উপজেলার জন গুরুত্ব-পূর্ণ বানিশান্তা ইউনিয়নে বানিশান্তা বাজারের খাঁলের উপর নির্মিত দোকান গত ১২.০২.১৯ ইং মঙ্গলবার দাকোপ উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ৭ দিনের মধ্যৈ উচ্ছেদের নির্দেশ প্রদান করলে ভুমিহীন প্রায় দুই”শত পরিবার সব-হারানোর অজানা আতংকে হতাশগ্রস্থ।
গুঞ্জন রহেছে, মোটা অংকের অর্থৈর বিনিময়ে একাটি মহল বাজারের খাঁলের উপর দোকান নির্মান করতে পূর্ন সহযোগিতা করেন। বিভিন্ন এন,জি,ও থেকে ভাঙ্গানহারা অসহায় মানুষ লোন নিয়ে তিল তিল করে সাজিয়েছেন একটি দোকান।
ভূমিহীন পরিবারের শেষ সম্বল উক্ত দোকান। উচ্ছেদ অভিযানে ভেঙ্গে দিলে মাথা গোজার ঠাই তাদের নেই। সরজমিনে কথা হয় বানিশান্তা বাজারের বিভিন্ন দোকানদারের সাথে তারা বলেন, ভাঙ্গন কবলে বানিশান্তা বাজার μমেই নদী থেকে ভিতরে ঢুকছে। সেই সাথে সিডর-আইলা মোকাবেলা করে কোন রকম ভাবে ঐতিয্যবাহী বানিশান্তা বাজার টিকিয়ে রেখেছি। উচ্ছেদ অভিযানে প্রসাশন দোকান গুলো ভেঙ্গে দিলে মরুভ‚মি হয়ে যাবে বানিশান্তা বাজার। বাজারে ঢুকতেই খালের উপর রেকডিয় সম্পতির মালিক দাবীদার অজয় মন্ডলের দেওয়া প্রায় ২০/২৫টি পজেশন বাজারের সৌন্ধয্য ধরে রেখেছে। কথা হয় হোটেল মালিক মোঃ সেলিম হাওলাদারের সাথে তিনি বলেন, বিভিন্ন এন,জি,ও থেকে লোন নিয়ে পজেশন μয় করে দোকান দিয়েছি। উচ্ছেদ করলে সর্বশান্ত হয়ে পড়ব-সংসার বাচানের মত কিছুই থাকবেনা। হানিফ হাওলাদার বলেন, উচ্ছেদের আগে ভ‚মিহীন দোকানদারদের পূর্নবাসনের ব্যাবস্থা করা প্রয়োজন। বানিশান্তা ইউনিয়ন মটর ভ্যান চালক মালিক সমঃ সমিতি লিঃ এর সভাপতি রহমান হাওলাদার বলেন, উক্ত খালের উপর আমাদের সমিতি ঘড় নির্মিত। ওখানে বসে আমরা সকল সদস্যদের দিক নির্দেশনা দিয়ে থাকি। ঘড় না থাকলে আমাদের ব্যাপক ক্ষতি হবে।
আবুল কালাম আজাদ, খোকন মন্ডল, সেলিম চৌধুরী, পরিতোন নেছা, আবুল মেকার (মোয়াজ্জেন), পল্টু শেখ, মাসুরা বেগম, রাবেয়া বেগম, রহমান সহ অনেকেই বলেন, আমরা সব-হারানোর অজানা আতংকে রহেছি। আন্তজাতীক মানবধীকার বাস্তবায়ন সংস্থা”র দাকোপ উপজেলা শাখার সাধারন সম্পাদক মোঃ রহমত আলী বলেন, যে ভাবেই হোক দির্ঘ দিনধরে ভ‚মিহীন মানুষেরা খালের উপর দোকান নির্মান করে বসবাস করছে। মানবিক বিবেচনা করে উচ্ছেদের আগে পূর্নবাসনের দাবী জানান। বানিশান্তা বাজারবাসী উদ্দর্তন কর্তৃপর্ক্ষের মানবিক দৃষ্টি আর্কষন করছে।

শেয়ার করুন:

Leave a Reply

Your email address will not be published.