খুলনার ৪ হাসপাতালে করোনা ও উপসর্গে আরও ১৩ জনের মৃত্যু

দ. প্রতিবেদক
খুলনার চারটি করোনা ডেডিকেটেড হাসপাতালে একদিনে চিকিৎসাধীন অবস্থায় করোনা আক্রান্ত ও উপসর্গ নিয়ে আরও ১৩ জনের মৃত্যু হয়েছে। সোমবার সকাল ৮টা পর্যন্ত আগের ২৪ ঘণ্টায় তাদের মৃত্যু হয়। মৃত ১৩ জনের মধ্যে খুলনা মেডিকেল কলেজ (খুমেক) হাসপাতালের করোনা ডেডিকেটেড হাসপাতালে সাতজন, জেনারেল হাসপাতালের করোনা ইউনিটের একজন, বেসরকারি গাজী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে তিনজন ও শহীদ শেখ আবু নাসের বিশেষায়িত হাসপাতালে দু’জন। এর আগে গত রবিবার খুলনায় ২৪ জনের মৃত্যু হয়। শুক্রবার ২৭ জনের মৃত্যু হয়েছিল। যা ছিল এ পর্যন্ত খুলনার করোনা ডেডিকেটেড হাসপাতালে সর্বোচ্চ মৃত্যুর রেকর্ড।
খুমেক হাসপাতালের ফোকালপার্সন ডা. সুহাস রঞ্জন হালদার জানান, হাসপাতালে গত ২৪ ঘণ্টায় করোনায় ছয়জন ও উপসর্গ নিয়ে একজন মিলে মোট সাতজনের মৃত্যু হয়েছে। মৃতরা হলেন- মাদারীপুরের সাবিহা বেগম (৭০), বাগেরহাটের তৌহিদুজ্জামান (৫০), যশোরের সেলিনা (৫০), পাইকগাছার জাহানারা (৭৫), খালিশপুরের ফরিদ (৫৮) ও কালিয়ার দাউদ (৭০)।
জেনারেল হাসপাতালের করোনা ইউনিটের মুখপাত্র ডা. কাজী আবু রাশেদ জানান, গত ২৪ ঘণ্টায় হাসপাতালের করোনা ইউনিটে খুলনা নগরের লবণচরা এলাকার রিজিয়া বেগম (৬২) নামে এক রোগী মারা গেছেন।
গাজী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের মালিক ডা. গাজী মিজানুর রহমান জানান, গত ২৪ ঘণ্টায় হাসপাতালের করোনা ইউনিটে চিকিৎসাধীন অবস্থায় খুলনার তিন রোগী মারা গেছেন। মৃতরা হলেন- মহানগরের খালিশপুরের পিয়ারা মজুমদার (৭১), একই এলাকার বকুল রানী দত্ত (৭২) ও যশোর সদরের জেলেমুন্নেছা (৭০)।
শহীদ শেখ আবু নাসের বিশেষায়িত হাসপাতালের ফোকালপার্সন ডা. প্রকাশ দেবনাথ জানান, গত ২৪ ঘণ্টায় হাসপাতালের করোনা ইউনিটে খুলনা মহানগরের দোলখোলার সাজ্জাদুল কবির (৫৭) ও দৌলতপুর পাবলা মধ্যপাড়ার খাদিজা বেগম (৫১) নামে দুই রোগী মারা গেছেন।

দক্ষিণাঞ্চল প্রতিদিন/ জে এফ জয়

শেয়ার করুন:

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *