February 25, 2024
আঞ্চলিক

খুবির গণিত ডিসিপ্লিনের পাঁচ শিক্ষার্থী পেলো গোল্ড মেডেল অ্যাওয়ার্ড

খবর বিজ্ঞপ্তি

গতকাল মঙ্গলবার বেলা সাড়ে ৩টায় খুলনা বিশ্ববিদ্যালয়ের ড. সত্যেন্দ্র নাথ বসু একাডেমিক ভবনে ইউআরপি ডিসিপ্লিনের লেকচার থিয়েটারে বিশ্ববিদ্যালয়ের গণিত ডিসিপ্লিনে ৯ম এ এফ মুজিবুর রহমান ফাউন্ডেশন গোল্ড মেডেল অ্যাওয়ার্ড প্রদান অনুষ্ঠান অনুষ্ঠিত হয়। অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য প্রফেসর ড. মোহাম্মদ ফায়েক উজ্জামান।

তিনি বলেন, জীবনের সকল ক্ষেত্রে গণিত অঙ্গাঙ্গিভাবে জড়িত। গণিতকে বাদ দিয়ে কোনো ক্ষেত্রে সাফল্য অর্জন সম্ভব নয়। বিজ্ঞান, সঙ্গীত, প্রযুক্তি সকল ক্ষেত্রেই গণিত নিবিড়ভাবে জড়িত। তাই গণিত ভীতিকে কাটিয়ে উঠতে স্কুল, কলেজে গণিত চর্চাকে আরও উৎসাহিত করতে হবে। এক্ষেত্রে এ এফ মুজিবুর রহমান ফাউন্ডেশন গুরুত্বপূর্ণ ভ‚মিকা পালন করছে। তিনি অ্যাওয়ার্ড প্রাপ্ত শিক্ষার্থীদের আন্তরিক শুভেচ্ছা জানান এবং অন্যদেরকেও নিরন্তর প্রচেষ্টার মাধ্যমে সাফল্য অর্জনের আহবান জানান।

অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন বিশ্ববিদ্যালয়ের ট্রেজারার প্রফেসর সাধন রঞ্জন ঘোষ, বিজ্ঞান, প্রকৌশল ও প্রযুক্তিবিদ্যা স্কুলের ডিন প্রফেসর ড. উত্তম কুমার মজুমদার, ছাত্রবিষয়ক পরিচালক প্রফেসর মোঃ শরীফ হাসান লিমন ও এ এফ মুজিবুর রহমান ফাউÐেশনের নির্বাহী পরিচালক তন্দ্রা চাকমা। অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন গণিত ডিসিপ্লিন প্রধান প্রফেসর ড. সরদার ফিরোজ আহমেদ। অনুষ্ঠানে স্বাগত বক্ত্য রাখেন আয়োজক কমিটির আহবায়ক সহযোগী অধ্যাপক মোহাম্মদ ওয়াহিদুজ্জামান। গোল্ড মেডেল অ্যাওয়ার্ড প্রাপ্ত শিক্ষর্থীদের মধ্যে অনুভ‚তি প্রকাশ করে বক্তব্য রাখেন সোমেন বৈরাগী ও তন্ময় বৈরাগী। পরে আন্তঃডিসিপ্লিন ফুটবল চ্যাম্পিয়ন গণিত ডিসিপ্লিন টিমকে এবং ডিসিপ্লিনে ইন্ডোর গেমস প্রতিযোগিতায় বিজয়ীদের মধ্যে ক্রেস্ট প্রদান করা হয়। অনুষ্ঠানে বিভিন্ন স্কুলের ডিন, ডিসিপ্লিন প্রধান, গণিত ডিসিপ্লিনের শিক্ষক, শিক্ষার্থী এবং অ্যাওয়ার্ড প্রাপ্ত শিক্ষার্থীদের অভিভাবকবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।

৯ম এ এফ মুজিবুর রহমান ফাউন্ডেশন গোল্ড মেডেল অ্যাওয়ার্ড প্রাপ্ত শিক্ষার্থীরা হলেন: মোসাঃ রেশমা খাতুন (এমএসসি ইন এপ্লাইড ম্য্যথমেটিকস থিসিস গ্রæপ, শিক্ষাবর্ষ-২০১৫-১৬, প্রাপ্ত জিপিএ-৪ এর মধ্যে ৪), শারমিন আক্তার সীমা (এমএসসি ইন এপ্লাইড ম্য্যথমেটিকস নন থিসিস গ্রæপ, শিক্ষাবর্ষ-২০১৫-১৬, প্রাপ্ত জিপিএ-৪ এর মধ্যে ৩.৯২), সোমেন বৈরাগী, বিএসসি (অনার্স), শিক্ষাবর্ষ-২০১৫-১৬, প্রাপ্ত জিপিএ-৪ এর মধ্যে ৩.৮৭, তন্ময় বৈরাগী, বিএসসি (অনার্স), শিক্ষাবর্ষ-২০১৬-১৭, প্রাপ্ত জিপিএ-৪ এর মধ্যে ৩.৯৩ এবং মোঃ জাহিদুল ইসলাম, বিএসসি (অনার্স), শিক্ষাবর্ষ-২০১৭-১৮, প্রাপ্ত জিপিএ-৪ এর মধ্যে ৩.৮৩।

 

 

শেয়ার করুন:

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *