February 25, 2024
জাতীয়

কুমিল­ায় বিজিবির সঙ্গে বন্দুকযুদ্ধে নিহত ২

 

 

 

দক্ষিণাঞ্চল ডেস্ক

কুমিল­ার চৌদ্দগ্রাম উপজেলায় বিজিবির সঙ্গে কথিত বন্দুকযুদ্ধে দুইজন নিহত হয়েছেন; পৃথক ঘটনায় গুলিবিদ্ধ হয়েছেন আরও দুইজন। হতাহতরা মাদক কারবারি বলে বিজিবির ভাষ্য। বিজিবি ১০ ব্যাটালিয়নের অধিনায়ক লেফটেন্যান্ট কর্নেল আবু মোহাম্মদ মহিউদ্দিন জানান, মঙ্গলবার রাত ১টার দিকে চৌদ্দগ্রাম পৌরসভার নাটাপাড়া এলাকার গোলাগুলির এ ঘটনা ঘটে।

নিহতরা হলেন উপজেলার ঘোলপাশা ইউনিয়নের শালুকিয়া গ্রামের মো. মোস্তফার ছেলে রুবেল মিয়া (৩৫) ও আলী আহম্মদের ছেলে সেলিম মিয়া (৪৫)।

বিজিবি কর্মকর্তা মহিউদ্দিন বলেন, চোরাচালানের খবর পেয়ে বিজিবির টহল দল নাটাপাড়ার একটি নির্জন বাগানে অবস্থান নেয়। এ সময় মাদক চোরাকারবারিরা বিজিবিকে লক্ষ করে গুলি ছোড়ে। বিজিবি আত্মরক্ষার্থে পাল্টা গুলি ছোড়ে। এতে দুই মাদক কারবারি আহত হয়। বিজিবি তাদের উদ্ধার করে চৌদ্দগ্রাম স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে গেলে চিকিৎসক মৃত ঘোষণা করেন।

এ সময় বিজিবি নিহত দুই জনের কাছ থেকে দুই হাজার ১৫৫টি ইয়াবা উদ্ধার করেছে বলে তিনি জানান। লাশ ময়নাতদন্তের জন্য কুমিল­া মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়েছে। এদিকে কুমিল­ার বৌয়ারা বাজার এলাকায় বিজিবির সঙ্গে কথিত বন্দুকযুদ্ধে দুইজন গুলিবিদ্ধ হয়েছেন।

বিজিবি কর্মকর্তা মহিউদ্দিন বলেন, মঙ্গলবার রাত সাড়ে ৯টার দিকে বিজিবির বিশেষ টহল দল গোপন সংবাদের ভিত্তিতে জেলার সদর দক্ষিণ উপজেলার মান্দারী কবরস্থান এলাকায় অবস্থান নেয়। এ সময় মাদক কারবারিরা ইয়াবা নিয়ে বাংলাদেশে প্রবেশের সময় বিজিবির উপস্থিতি টের পেয়ে তাদের ওপর গুলি ছুড়তে শুরু করে।

বিজিবি আত্মরক্ষার্থে পাল্টা গুলি ছোড়ে। এ সময় অন্যরা পালিয়ে গেলেও গুলিবিদ্ধ অবস্থায় দুই মাদক কারবারিদেরকে আটক করে বিজিবি। তাদের কাছ থেকে তিন হাজার ৭৫০টি ইয়াবা উদ্ধার করা হয়।

গুলিতে আহতরা হলেন নারায়নগঞ্জের সোনারগাঁও উপজেলার যশোর গ্রামের ওয়ালী উল­াহর ছেলে মো. বকুল মিয়া (৪৩) ও কুড়িগ্রামের নাগেশ্বরীর রসুলপুর গ্রামের আবদুল মোন্নাফের ছেলে আবদুল করিম (৩৭)। তাদের কুমিল­া মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে বলে তিনি জানান।

 

 

শেয়ার করুন:

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *