কালীগঞ্জে স্ত্রীকে হত্যার পর স্বামীর আত্মহত্যা

দক্ষিণাঞ্চল ডেস্ক
ঝিনাইদহের কালীগঞ্জে ‘স্ত্রীকে হত্যার পর স্বামী গলায় ফাঁস দিয়ে আত্মহত্যা’ করেছেন বলে পুলিশ জানিয়েছে। কালীগঞ্জ থানার ওসি মো. ইউনুস আলী বলেন, বুধবার বেলা ২টার দিকে নিমতলা বাসস্ট্যান্ড এলাকায় মোদচ্ছের আলীর বাড়ি থেকে পুলিশ ও ফায়ার সার্ভিসকর্মীরা ঘরের দরজা ভেঙে তাদের লাশ উদ্ধার করেন। তারা হলেন যশোর সদর উপজেলার বারিনগর এলাকার শৈলেন কুমার (৫০) ও রেবা রানী (৪৫)। তারা মোদচ্ছের আলীর বাড়িতে ভাড়া থাকতেন। শৈলেন কাঁচামাল কেনাবেচা করতেন।
ওসি ইউনুস প্রাথমিক তদন্তের তথ্যে বলেন, সকালে ঘরের দরজা বন্ধ দেখে স্থানীয়রা পুলিশে খবর দেয়। পুলিশ ও ফায়ার সার্ভিস গিয়ে এলাকাবাসীর উপস্থিতিতে ঘরের দরজা ভেঙে তাদের লাশ দেখতে পায়। শৈলেনের লাশ জানালার গ্রিলের সঙ্গে গলায় ফাঁস লাগানো অবস্থায় ঝুলছিল আর রেবার লাশ বিছানায় শোয়ানো ছিল। স্ত্রীকে শ্বাস রোধ করে হত্যার পর শৈলেন আত্মহত্যা করেন বলে পুলিশ প্রাথমিকভাবে ধারণা করছে। লাশ দুটি ময়নাতদন্তের জন্য ঝিনাইদহ সদর হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়েছে।

শেয়ার করুন:

Leave a Reply

Your email address will not be published.