কলারোয়ায় খোলা আকাশের নিচে সোনাবাড়িয়া হাই স্কুলের পাঠদান

কলারোয়া (সাতক্ষীরা) প্রতিনিধি
কলারোয়ার ঐতিহ্যবাহী সোনাবাড়িয়া সম্মিলিত মাধ্যমিক বিদ্যালয়ে সরকারি নতুন ভবন বরাদ্দ দেয়া হয়নি। উপজেলার বিভিন্ন হাইস্কুল, কলেজ, মাদ্রাসা ২০১৮ সালে নতুন ভবন পেলেও এই হাইস্কুলটি নতুন ভবন থেকে বঞ্চিত হয়েছে। কেন নতুন ভবন মেলেনি, তার কোনো জবাব নেই স্কুল কর্তৃপক্ষের কাছে। তবে তারা চেষ্টার কোনো ত্রুটি করেননি বলে জানান। ১৯৬৭ সালে প্রতিষ্ঠিত এ বিদ্যালয়টি পৌরসভার বাইরে উপজেলার ১২টি ইউনিয়নের মধ্যে সকল পাবলিক পরীক্ষা ও অন্যান্য সকল পারফরম্যান্সে এগিয়ে থাকলেও সরকারি ভাবে বরাদ্দকৃত নতুন ভবন থেকে বঞ্চিত থেকে গেছে প্রতিষ্ঠানটি। এজন্য তাদের আক্ষেপের কোনো শেষ নেই।
সম্প্রতি বিদ্যালয়টি পরিদর্শনকালে দেখা গেছে, শিক্ষার্থীরা নতুন ভবনের অভাবে শ্রেণিকক্ষের সমস্যার মুখে পড়ছে। শ্রেণিকক্ষ সংকট এতোটাই প্রবল যে স্কুল ক্যাম্পাসের খোলা আকাশের নিচে বসে ক্লাস করছে শিক্ষার্থীরা। টিচার একটি চেয়ারে বসে প্ঠা দিচ্ছেন, আর শিক্ষার্থীরা বৃত্তাকারে বসে সেই পাঠ গ্রহণ করছে। এখন শীত মৌসুম হওয়ায় বাইরে খোলা আকাশের নিচে পাঠদান করা যাচ্ছে। কিন্তু একমাস পর মৌসুম বদলানো শুরু করলে খোলা মাঠে ক্লাস করার আর সুযোগ থাকছেনা। ৮ শতাধিক শিক্ষার্থীর এই স্কুল পড়াশোনা, স্কাউটস, সাংস্কৃতিক-সকল ক্ষেত্রে অগ্রণী। এমন একটি ঐতিহ্যবাহী প্রতিষ্ঠান কেনো নতুন ভবন পেলোনা, তা ভাবিয়ে তুলছে-ভূক্তভোগীদের।
প্রধান শিক্ষক আখতার আসাদুজ্জামান জাানান, এসএসসি পরীক্ষার্থীদের (ছাত্র) স্কুলে আবাসিক ব্যবস্থাপনার মধ্য দিয়ে নৈশকালীন পাঠদান দেয়া হয়। নৈশকালীন এই পাঠদান ও শিক্ষার্থীদের পড়াশোনা সরেজমিনে মনিটর করা হয়। সিসি ক্যামেরায় আওতায় ক্লাসরুমগুলো থাকায় সার্বিক মনিটর সঠিকভাবে সম্পন্ন করা সম্ভব হয়ে থাকে। তিনি বলেন, জরুরী ভিত্তিতে বিদ্যালয়ে নতুন ভবন (ঊর্ধ্বমুখী সম্প্রসারণ) নির্মাণ করা প্রয়োজন। তাহলে শিক্ষার্থীরা শ্রেণিকক্ষের অভাবে ভুগবে না। বিঘ্নিত  হবে না পাঠদান কার্যক্রম।
প্রধান শিক্ষক আরও বলেন, বিদ্যালয়ে একটি সাইকেল শেড না থাকায় ছাত্র-ছাত্রীরা তাদের অতি প্রিয় ও প্রয়োজনীয় বাহন বাইসাইকেল নিয়েও পড়েছে মহা বিপাকে। স্কুল ক্যাম্পাসে সাইকেল শেড না থাকায় তাদের বাইসাইকেলগুলো রাখতে হচ্ছে স্কুল মাঠে খোলা আকাশের নিচে। প্রচন্ড রোদে ও বর্ষায় সেই বাইসাইকেলগুলো শেডের অভাবে নষ্ট হচ্ছে প্রতিনিয়ত। বিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ নতুন ভবন (ঊর্ধ্বমুখী সম্প্রসারণ) ও বাইসাইকেল শেড নির্মাণের জন্য মাননীয় সংসদ সদস্যসহ সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের সুদৃষ্টি কামনা করেন।

শেয়ার করুন:

Leave a Reply

Your email address will not be published.