এ কেমন বেদনাদায়ক-হাস্যকর ঘটনা !

অনলাইন প্রতিবেদক

আয়ারল্যান্ডের এক ব্যক্তি ঘটিয়ে ফেলেছে একইসাথে বর্তমান যুগের অন্যতম একটি হাস্যকর এবং বেদনাদায়ক ঘটনা। পিঠের ব্যথা থেকে মুক্তি পেতে সে তার নিজের সেমেন(বীর্য) ১৮ মাস ধরে ইনজেকশনের মাধ্যমে পুশ করেছে তার হাতে।

ডাক্তারের ঘটনাটি আবিষ্কার করেন যখন ব্যক্তিটি অসুস্থ এবং ফুলা ঢলা হয়ে হাসপাতালে ভর্তি হন, যদিও তার প্রধান কমপ্লেন ছিল মাজায় ব্যথা এবং পিঠে ব্যাথার। পরে ডাক্তাররা পরীক্ষা-নিরীক্ষা করে বের করেন যে তার হাতে এবং পায়ের মাংসপেশিতে সে ইনজেকশনের মাধ্যমে পুশ করেছে তার নিজের সেমেন এবং তার সর্বশেষ ডোস ছিল তিনগুণ এর মত ! এর ফলে তার মাংসপেশি গুলায় পুঁজ তৈরি হয়।

ডাক্তার পাগল লোকটিকে এ ব্যাপারে জিজ্ঞাসা করলে বলেন যে সে দীর্ঘ দেড় বছর ধরে এ কাজটি করছেন এবং এটিকে সে ইনোভেটিভ বলে আখ্যায়িত করেছে। 

এটা পুরোপুরি তার নিজের বুদ্ধিতে ছিল এবং অন্য কোথাও থেকে সে পরামর্শ নেননি। 

হসপিটালে থাকার পর ও ডিসচার্জ এর পূর্বে তার ব্যাকপেইনের যথেষ্ট উন্নতি হয়। 

কিন্তু হাতে ইনফেকশনের ফলে তৈরি হওয়া পুঁজ বের করার জন্য সে অস্বীকৃতি জানান।

এমন ঘটনা এটাই প্রথম নয়, এর আগে রাশিয়াতে একটা লোক এমন কাজ করেছেন অবশ্য তার হাতে এবং পায়ে পুশ করেছিলেন এক ধরনের তরল পদার্থ। যদিও এখন এর জন্য তাকে অনেক ভোগান্তি পোহাতে হচ্ছে। এর আগেও আমেরিকাতে এক ব্যক্তি তার অঙ্গে প্রত্যঙ্গে সিলিকন জেল ইঞ্জেক্ট করার ফলে মারা যান। এমন সব পাগলা কাণ্ড এদের মত পাগলদের দ্বারাই সম্ভব। 

 

শেয়ার করুন:

Leave a Reply

Your email address will not be published.