অনিয়ম, দুর্নীতি প্রতিরোধে অভিযোগ বক্স স্থাপন করা হবে : এমপি বাবু

পাইকগাছা প্রতিনিধি

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা দুর্নীতির বিরুদ্ধে জিরো টলারেন্স নীতি ঘোষণা করেছেন উল্লেখ করে পাইকগাছা-কয়রা সংসদ সদস্য আলহাজ্ব আক্তারুজ্জামান বাবু বলেছেন, দুর্নীতি একটি অন্যতম সমস্যা। এর কারণে সমাজের সাধারণ মানুষ সবচেয়ে বেশি ক্ষতিগ্রস্থ হয়। দুর্নীতি দূর করতে পারলে দেশের মানুষ শেখ হাসিনাকে আজীবন দেশের প্রধানমন্ত্রী করে রাখবেন।

তিনি বলেন, আমি মনোনয়ন কিংবা কাউকে খুশি করার জন্য কাজ করতে চাই না। প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশনা বাস্তবায়ন ও এলাকার মানুষের জন্য কাজ করতে চাই। তিনি আরো বলেন, এলাকার প্রধান সমস্যা বেড়ি বাঁধ সংস্কারকে প্রধানমন্ত্রী অধিক গুরুত্ব দিয়েছেন। আশা করছি, দ্রæত সময়ের মধ্যে নির্বাচনী এলাকার ৫৫ কিলোমিটার বেড়ি বাঁধ সংস্কার কাজ শুরু করা হবে। হাসপাতালে জনবল বৃদ্ধি সহ সড়কে নিরাপত্তা নিশ্চিত করতে আঁকা-বাঁকা প্রধান সড়ক সোজা করা হবে।

“জমি যার, ঘের তার” উল্লেখ করে এমপি বাবু বলেন, এলাকায় যারা চিংড়ি ঘের করে তারা ক্ষমতাধর ব্যক্তিকে ম্যানেজ করে দীর্ঘদিন ঘের করে আসছে। এমন অনেক জমির মালিক রয়েছেন যারা ২০ বছরেরও অধিক সময় হারীর টাকা পান না। এভাবে জমির মালিকদের ঠকিয়ে ঘের করার দিন শেষ উল্লেখ করে তিনি হারীর টাকা পরিশোধ ও সরকারী রাস্তার পাশে মাটি ভরাট সহ জমির মালিকদের ঘের করার সুযোগ প্রদানের জন্য ঘের মালিকদের প্রতি নির্দেশ দেন। তিনি হাট বাজারের অবৈধ স্থাপনা উচ্ছেদ, টোল রেট স্থাপন, ভিজিডি, ভিজিএফ সহ সরকারী সেবাপ্রদান কর্মসূচিতে টাকা নেওয়া থেকে বিরত থাকার জন্য সকলের প্রতি আহবান জানান। অনিয়ম, দূর্নীতি প্রতিরোধে উপজেলা সদরসহ বিভিন্ন স্থানে অভিযোগ বক্স স্থাপন করা হবে এবং বক্সে যাদের বিরুদ্ধে আনীত অভিযোগ প্রমাণিত হবে তাদের বিরুদ্ধে কঠোর ব্যবস্থা নেয়া হবে বলে হুশিয়ার করে এ সব কাজে সকলের সহযোগিতা কামনা করেন।

তিনি বৃহস্পতিবার সকালে পাইকগাছা উপজেলা পরিষদ মিলনায়তনে পরিষদের মাসিক সাধারণ সভা ও লতা ইউপির উপ-নির্বাচন উপলক্ষে বিশেষ আইনশৃংখলা সভায় প্রধান অতিথির বক্তৃতায় এসব কথা বলেন।

উপজেলা চেয়ারম্যান এ্যাডঃ স.ম. বাবর আলীর সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত সভায় বিশেষ অতিথি ছিলেন, উপজেলা নির্বাহী অফিসার জুলিয়া সুকায়না, মেয়র সেলিম জাহাঙ্গীর, উপজেলা মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান শাহানারা খাতুন, সহকারী কমিশনার (ভূমি) ডাঃ মোঃ আব্দুল আউয়াল, ওসি এমদাদুল হক শেখ। বক্তব্য রাখেন, ইউপি চেয়ারম্যান আলহাজ্ব আব্দুল মজিদ গোলদার, রুহুল আমিন বিশ্বাস, কে,এম, আরিফুজ্জামান তুহিন, কওসার আলী জোয়াদ্দার, গাজী জুনায়েদুর রহমান, ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান আব্দুল বারী, উপজেলা কৃষি অফিসার এএইচএম জাহাঙ্গীর আলম, সিনিয়র উপজেলা মৎস্য কর্মকর্তা পবিত্র কুমার দাস, মেডিকেল অফিসার ডাঃ সুজন কুমার সরকার, পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা এস,এম, কবির হোসেন, সমাজসেবা কর্মকর্তা সরদার আলী আহসান, প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকর্তা প্রশান্ত কুমার রায়, পল্লী উন্নয়ন কর্মকর্তা আলী নূর হোসেন, বন কর্মকর্তা প্রেমানন্দ রায়, দারিদ্র বিমোচন কর্মকর্তা বিপ্লব কান্তি বৈদ্য, উপ-সহকারী প্রকৌশলী, আমিনুল ইসলাম, ফরিদ হোসেন ও আনসার ভিডিপি প্রশিক্ষক আশালতা।

শেয়ার করুন:

Leave a Reply

Your email address will not be published.