মেসির মাইলফলক ম্যাচে জিতলো বার্সেলোনা

স্প্যানিশ লা লিগায় প্রত্যাশিত জয় পেয়েছে বর্তমান লিগ চ্যাম্পিয়ন বার্সেলোনা। ক্যাম্প ন্যু’তে মঙ্গলবার (২৪ সেপ্টেম্বর) দিনগত রাতে ভিয়ারিয়ালকে ২-১ গোলে হারিয়েছে কাতালান জায়ান্টরা।

এদিন বার্সেলোনার হয়ে লিওনেল মেসি তার ৪০০তম ম্যাচ খেলতে নামেন। পাশাপাশি এদিন ছিল বার্সার ঘরের মাঠ ক্যাম্প ন্যু’র ৬২তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী। ১৯৫৭ সালের ২৪ সেপ্টেম্বর স্টেডিয়ামটি যাত্রা শুরু করে।

ইনজুরি কাটিয়ে এবারের মৌসুমে প্রথমবার শুরুর একাদশে ছিলেন অধিনায়ক মেসি। উজ্জীবিত বার্সেলোনার গোল পেতেও সময় লাগেনি। ষষ্ঠ মিনিটে মেসির নেওয়া কর্নার কিক থেকে কড়া মার্কিংয়ের বেড়া জাল ভেঙে হেড দিয়ে গোল করেন আঁতোয়া গ্রিজম্যান।

দ্বিতীয় গোলটির জন্য বেশিক্ষণ অপেক্ষা করতে হয়নি কাতালানদের। ১৫ মিনিটে সার্জিও বুসকেতসের পা থেকে বল পেয়ে যান বার্সার ব্রাজিলিয়ান মিডফিল্ডার আর্থার। প্রায় ২৫ গজ দূর থেকে আচমকাই ডান পায়ের এক শটে বল জালে পাঠান তিনি। ভিয়ারিয়াল গোলরকক্ষের তাকিয়ে দেখা ছাড়া কিছুই করার ছিল না।

২৫ মিনিটের মাথায় বার্সা কোচ ও সমর্থকদের চিন্তার কারণ হয়ে দেখা দেয় মেসির আঘাত। সাইড লাইনে কিছুক্ষণ সময় উরুতে চিকিৎসা নিয়ে আবার মাঠে ফেরেন বার্সার প্রাণ ভোমরা মেসি।

তবে বিরতির ঠিক আগেই ব্যবধান কমায় অতিথি দলটি। পেনাল্টি বক্সের বাইরে থেকে বাম পায়ের বুলেট গতির শটে বল লক্ষ্য ভেদ করেন স্যান্তি ক্যাসোরলা।

দ্বিতীয়ার্ধে মেসিকে নিয়ে আর ঝুঁকি নেননি বার্সা কোচ ভালভার্দে। শুরুতেই মেসির পরিবর্তে মাঠে নামান ইনজুরি থেকে ফেরা উসমানে দেম্বেলেকে।

শুরুতেই গোলের সুযোগ হাতছাড়া করে বার্সেলোনা। দেম্বেলের দু’টি ক্রস ফিনিশিং করতে ব্যর্থ হন গ্রিজম্যান ও লুইস সুয়ারেস। এরপর সুয়ারেসের পরিবর্তে আনসু ফাতিকে মাঠে নামান কোচ। প্রতিপক্ষের ডিফেন্সে বেশ কয়েকবার আক্রমণের জন্য বলের যোগানও দেন ফাতি।

ম্যাচের শেষ মিনিটে জেরার্ড পিকের নেওয়া একটি ফি-কিক ঠেকিয়ে দেন ভিয়ারিয়াল গোলরক্ষক। এ জয়ে ৬ ম্যাচে ১০ পয়েন্ট নিয়ে পয়েন্ট টেবিলের চার নম্বর উঠে এসেছে ভালভার্দের শিষ্যরা।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Social media & sharing icons powered by UltimatelySocial