নিউজিল্যান্ড সিরিজে সাকিবের বদলি কে?

ক্রীড়া প্রতিবেদক
নিউজিল্যান্ডে ওয়ানডে সিরিজ খেলা হচ্ছে না সাকিবের। বাঁম হাতের অনামিকায় চোট পাওয়ায় সাকিব ছিটকে গেছেন তিন ম্যাচ ওয়ানডে সিরিজ থেকে। বিসিবি চিকিৎসক তাকে তিন সপ্তাহের বিশ্রাম দিয়েছেন। চোট সারতে অন্তত তিন সপ্তাহ লাগবে। এরপর ধীরে ধীরে পূর্ণবাসন প্রক্রিয়া শুরু করবেন বাংলাদেশের টেস্ট অধিনায়ক।
আনুষ্ঠানিকভাবে ইনজুরির কারণে ওয়ানডে সিরিজ থেকে ছিটকে গেছেন সাকিব। তবে শোনা যাচ্ছে টেস্টেও তাকে পাওয়া যাবে না। তিন সপ্তাহের বিশ্রাম শেষ হবে ১ মার্চ। ২৮ ফেব্র“য়ারি শুরু হচ্ছে প্রথম টেস্ট। পরের দুটি টেস্ট শুরু ৮ মার্চ ও ১৬ মার্চ। বিসিবি চিকিৎসক রবিবার রাইজিংবিডিকে বলেন, ‘আসলে মাঠে ফেরাটা নির্ভর করছে সাকিবের ওপর। তিন সপ্তাহ তাকে সময় দিতেই হবে। এরপর কতো দ্রুত সাকিব ফিরতে পারবে সেটা সাকিব নিজেই ঠিক করবেন। তবে তিন সপ্তাহ পর তার আঙুল আবার দেখা হবে। এক্স-রেও করানো হতে পারে। যদি দেখি কোনো সমস্যা আছে তাহলে আবারও বিশ্রামে থাকতে হবে। কিছুদিন আগেই বাঁহাতের কনিষ্ঠায় চোট পেয়েছিল। পাশাপাশি দুটি আঙুল নির্ভয়ে সামলানো কঠিন। তাই তাকে সময় দিতেই হবে।’
বিশ্বকাপকে সামনে রেখে কোনো ঝুঁকি নিতে নারাজ বিসিবি। তাই টেস্ট সিরিজ থেকেও সাকিবকে সরিয়ে নিতে আপত্তি নেই বিসিবিরি। তবে এখনই কোনো চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত নিচ্ছে না টিম ম্যানেজম্যান্ট, বিসিবি। তিন সপ্তাহ সময় দিতে আগ্রহী সংশ্লিষ্টরা। এদিকে সাকিবের চোটে ওয়ানডেতে কিংবা টেস্টে কাউকে দলে নেওয়া হবে কিনা তা এখনও নিশ্চিত হতে পারেনি। ওয়ানডেতে মেহেদী হাসান মিরাজ ও নাঈম হাসান রয়েছেন। তাই বাড়তি স্পিনার নেওয়ার প্রয়োজন অনুভব করছে না টিম ম্যানেজম্যান্ট। তবে ব্যাটসম্যান হিসেবে ইমরুল কায়েসকে ভাবনায় এনেছিলেন নির্বাচকরা। তবে টপ অর্ডার এ ব্যাটসম্যানকে বিশ্রাম দিয়েছে বিসিবি চিকিৎসক। তাকে টেস্ট দলে রাখার আভাস দিয়েছেন নির্বাচকরা। আর ওয়ানডেতে যদি কাউকে নেওয়া হয় সেক্ষেত্রে স্পিনার আরাফাত সানী ও তাইজুল ইসলামের নাম উঠছে।
শেষ সিরিজে দলের সঙ্গে থাকা নাজমুল অপুর পারফরম্যান্স নিয়ে সন্তুষ্ট নয় টিম ম্যানেজম্যান্ট। ওয়ানডেতে সানী এগিয়ে আছেন আগের পারফরম্যান্সের রেকর্ডে। আর টেস্ট দলে থাকা তাইজুলকে আগে ভাগে নিউজিল্যান্ড উড়িয়ে নিতে আপত্তি নেই বিসিবির। দেখার বিষয়, শেষ পর্যন্ত সাকিবের বদলি হিসেবে কাউকে নিউজিল্যান্ডে পাঠায় কিনা বিসিবি। শেষ সিদ্ধান্ত নিউজিল্যান্ড থেকেই আসবে বলে ধারণা দিলেন নির্বাচক হাবিবুল বাশার, ‘মাশরাফি আজই দলের সঙ্গে যোগ দিয়েছে। কোচের সঙ্গে বসে যদি সিদ্ধান্ত হয় বাড়তি কাউকে লাগবে তাহলে আমরা পাঠাব। কিছু নাম সুপারিশ তো করা আছে। সেখান থেকেই একজনকে পাঠাব। যদি প্রয়োজন না হয় তাহলে টেস্ট দল নিয়ে পরবর্তীতে সিদ্ধান্ত নেওয়া যাবে।’

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *